জিংক সমৃদ্ধ ধান প্রোমোশনে উপ-সহকারি কৃষি কর্মকতাদের প্রশিক্ষক প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত

জিংক সমৃদ্ধ ধান প্রোমোশনে উপ-সহকারি কৃষি কর্মকতাদের প্রশিক্ষক প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত

  • Post author:
  • Post category:News

জিংক সমৃদ্ধ ধান প্রোমোশনে উপ-সহকারি কৃষি কর্মকতাদের প্রশিক্ষক প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত

—————————————

হারভেষ্টপ্লাস বাংলাদেশ এর আর্থিক ও কারিগরি সহায়তায় পরিচালিত এবং গ্রাম উন্নয়ন কর্ম (গাক) কর্তৃক বাস্তবায়নাধীন প্রকল্প “Market promotion of Bio-fortified zinc rice in Bangladesh” এর আওতায় গতকাল ২০ সেপ্টেম্বর ২০২২ ইং তারিখে উপ-পরিচালক, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর এর সম্মেলন কক্ষ, নওগাঁয় দিনব্যাপী জিংক সমৃদ্ধ ধান প্রোমেশনে উপ-সহকারি কৃষিকর্মকতাদের প্রশিক্ষক প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নওগাঁ জেলার কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক জনাব মোঃ আবু হোসেন, বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ধান গবেষনা ইন্সটিটিউট, রাজশাহী অঞ্চলের প্রধান গবেষক ড. মোঃ ফজলুল ইসলাম, অতিরিক্ত উপ-পরিচালক (শষ্য) জনাব মোঃ শামিম ইকবাল, নওগাঁ সদর উপজেলার স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ মোঃ আবুল কালাম আজাদ এবং হারভেষ্টপ্লাস বাংলাদেশ এর রাজশাহী ডিভিশনাল কো-অর্ডিনেটর কৃষিবিদ মোঃ জাকিউল হাসান।

গাক’র সমন্বয়কারী (কমিউনিকেশন এন্ড ডকুমেন্টেশন) সরদার জিয়া উদ্দিনের সঞ্চালনায় জিংক সমৃদ্ধ ধান প্রোমোশনে প্রশিক্ষক প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠানে কৃষিবিদ মোঃ জাকিউল হাসান হারভেষ্টপ্লাস বাংলাদেশ এর কার্যক্রম এবং প্রকল্পের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য তুলে ধরেন। প্রধান অতিথি জনাব আবু হোসেন জিংক সমৃদ্ধ ধান চাষের সম্ভাবনা ও গুরুত্ব তুলে ধরেন। প্রধান ধান গবেষক ড. মোঃ ফজলুল ইসলাম জিংক সমৃদ্ধ ধানের বিভিন্ন জাত, কারিগরি বিষয় ও উৎপাদন কৌশল ব্যাখ্যা করেন এবং স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ মোঃ আবুল কালাম আজাদ জিংক চালের পুষ্টিগুন বিশেষ করে গর্ভবতী মা ও শিশুদের জন্য জিংকের ঘাটতি ও প্রয়োজনীয় মাত্রা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেন।

অনুষ্ঠানে নওগাঁ জেলার রানীনগর এবং নওগাঁ সদর উপজেলার ২৫ জন উপ-সহকারি কৃষি কর্মকর্তা উক্ত প্রশিক্ষক প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেন।